,
সংবাদ শিরোনাম :
«» বরেণ্য অভিনেতা আলী যাকেরের মৃত্যুতে বিরোধীদলীয় নেতার শোক «» মানববন্ধনে ডাঃ মুশফিকুর রহমান শুভ বালিকা উচ্চবিদ্যালয় পুনরায় চালুর জোরালো দাবি নগরবাসীর «» সাবেক ডেপুটি স্পিকার কর্নেল (অব.) শওকত আলীর মৃত্যুতে বিরোধীদলীয় নেতার শোক «» অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী-শিশুকন্যা হত্যা, আসামির ফাঁসি কার্যকর «» নতুন ইতিহাস নাকি চমক, অনিশ্চয়তার দ্বারপ্রান্তে যুক্তরাষ্ট্র «» সড়ক পরিবহন আইন ২০১৮ এর পূর্ণ বাস্তবায়নের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন «» ‘আমরা যুদ্ধ চাই না, তবে আক্রান্ত হলে মোকাবেলার শক্তি অর্জন করতে চাই’- প্রধানমন্ত্রী «» ময়মনসিংহে যুবদলের ৪২ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত «» জাতীয় সংসদ ও ওআইসিতে ফ্রান্সের বিরুদ্ধে নিন্দা প্রস্তাব আনার দাবি চরমোনাই পীরের «» রিফাত শরীফ হত্যা মামলায় আদালতে অপ্রাপ্তবয়স্ক ১৪ আসামি, রায় দুপুরে

‘আমরা যুদ্ধ চাই না, তবে আক্রান্ত হলে মোকাবেলার শক্তি অর্জন করতে চাই’- প্রধানমন্ত্রী

মাটি ও মানুষ: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, আমাদের পররাষ্ট্রনীতি অত্যন্ত স্পষ্ট- সকলের সঙ্গে বন্ধুত্ব, কারোর সঙ্গে বৈরিতা নয়। আমরা কারোর সঙ্গে যুদ্ধ করতে চাই না, আমরা সকলের সঙ্গে বন্ধুত্ব চাই। এই বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক নিয়েই আমরা বাংলাদেশকে আর্থ-সামাজিকভাবে উন্নত করতে চাই।

 

 

বুধবার (২৮ অক্টোবর) সকালে গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর আটটি ইউনিট/সংস্থাকে জাতীয় পতাকা প্রদান অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী।

 

 

 

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘সেনাবাহিনীর সদস্য হিসেবে দেশের জন্য কাজ করার লক্ষ্যে সর্বপ্রথম দরকার হচ্ছে পেশাদারিত্ব এবং প্রশিক্ষণ। আর এই পেশাদারিত্বের কাঙ্ক্ষিত মান অর্জনের জন্য আপনাদের সকলকে পেশাগতভাবে দক্ষ, সামাজিক ও ধর্মীয় মূল্যবোধে উদ্বুদ্ধ হয়ে সৎ এবং মঙ্গলময় জীবনের অধিকারী হতে হবে। পবিত্র সংবিধান ও দেশমাতৃকার সার্বভৌমত্ব রক্ষা করার জন্য আপনাদের ঐক্যবদ্ধ থেকে অভ্যন্তরীণ কিংবা বাহ্যিক-যেকোনো ধরনের হুমকি মোকাবিলার জন্য সদা প্রস্তুত থাকতে হবে। আমরা তৈরি থাকতে চাই।’

 

 

সেনাবাহিনীর উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রী বলেন, যদি কখনো আমরা আক্রান্ত হই, সেটা মোকাবেলা করার মতো শক্তি যেন আমরা অর্জন করতে পারি, সেভাবেই আমরা প্রস্তুতি নিয়ে রাখতে চাই। বাংলাদেশ সেনাবাহিনী দেশের মানুষের ভরসা ও বিশ্বাসের প্রতীক। সেভাবেই মানুষের আস্থা অর্জন করেই আপনাদের এগিয়ে যেতে হবে।

 

 

সরকারপ্রধান বলেন, ‘আমরা বৈরিতা চাই না, যুদ্ধ চাই না। কারণ যুদ্ধের যে ভয়াবহ রূপ, তা আমার নিজের দেখা আছে। আমরাও এর ভুক্তভোগী। কাজেই আমরা আর সে ধরনের সংঘাতে জড়িত হতে চাই না।’

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Social media & sharing icons powered by UltimatelySocial